৩০ বছর ধরে মৃত স্বা’মীর অবসর ভাতা জমিয়ে ম’সজিদ বানালেন স্ত্রি…!

৩০ বছর ধরে মৃত স্বা’মীর অবসর ভাতা জমিয়ে ম’সজিদ বানালেন স্ত্রি…

হারবি ওই ছবি প্রকাশ ক’রার পর অনেকে প্রশংসা করেছেন। আল হারবি টু’ইটারে যে ছবি প্রকাশ করেছেন সেখানে দেখা যাচ্ছে, তার মা নতুন বানানো মসজিদ প্রাঙ্গণে দাঁড়িয়ে আছেন। ছ’বির নিচে আল হারবি লিখেন, তুমি

কতো মহৎ, মা…তু’মি কখনও আমার মৃ’ত বাবার অবসর ভাতা ভোগ করনি। আমার বাবার নামে মসজিদ বানানোর আগ পর্যন্ত গেলো ৩০ বছর ধরে এই টাকা জমিয়েছ। আমার বাবা শা’ন্তিতে থাকুন এবং আল্লাহ তাকে জা’ন্নাতবাসী করুন।

আল হারবি ওই টু’ইট করার কয়েক ঘণ্টার মধ্যে সেটি ভাইরাল হয়ে যায়। অনেকে ওই ছবি শেয়ারও করেন। একজন টুইটার ব্য’বহারকারী লিখেছেন, আল্লাহ তাকে ও তার স্বা’মীকে পরকালেও এক করুন। আরেকজন সোশ্যাল মিডিয়া ব্যবহারকারী লিখেছেন, এটি ভালোবাসার সর্বোচ্চ, রূপ।

সিরাজগেঞ্জের শা,হজাদপুরে বৌদ্ধ পরিবারের ৪ জন ইসলাম ধর্ম গ্রহণ করেছেন। গতকাল রাতে বৌদ্ধ পরিবারের ৪ জন ইসলাম ধর্ম গ্র,হণ করে বলে জানা গেছে। জানা যায়, সিরাজগঞ্জের শাহজাদপুরের বাঘাবাড়ী দক্ষিণ পাড়ে

এক বৌদ্ধ পরিবারের দুইজন না’,রী ও দুইজন পুরু’ষসহ মোট চারজন ইসলামধ’র্ম গ্রহণ করেছেন। সম্প্রতি স্থানীয় মসজিদের এক ইমামসাহেব তাদের কালেমা পাঠ করান। এর আগে নোটারী পা’বলিক মোকাম সিরাজগঞ্জে

মাধ্যমে তারা হ’লফনামায় স্বাক্ষর করেন। নেপালী বংশদ্ভূত এই বৌ’দ্ধ পরিবারের ইসলাম ধর্ম গ্রহণকারীগণ হচ্ছেন, মোঃ নজরুল ইসলাম ( নন্দ বাহাদুর) মোছাঃ খাদিজা খাতুন ( সু’মিতা রানী) মোছাঃ নুরজাহান ( পিংকি

রাণী) আ’বুল কালাম আজাদ ( কালু বাহাদুর)। এ ব্যাপারে নুরজাহান খা’তুন সাংবাদিকদের জানান, ইসলাম শান্তি ও সম্প্রীতির ধ’র্ম। এ’ই ধর্মের মাধ্যমেই পরকালীন জীবনে মুক্তি সম্ভব। আমরা মু’সলমানদের সাথে মিশে তাদের আ’চার ব্যবহারে মুগ্ধ হয়ে এ ধর্মের প্রতি অনুপ্রা’ণিত হয়েছি।

খাদিজা খাতুন ( সু’মিতা রাণী) জানান, আমাদের পূর্বপুরু’ষ নেপালে বাস করছেন। আমার স্বা’মীর বাড়ি নেপালের কাঠমুন্ডু। অনেকদিন ধরেই আমরা ইসলামের প্রতি আসক্ত। ফলে আ’লাপ আলোচনা করে স্বপরিবারে ইসলাম কবুল করে ভাল লাগছে

Leave a Reply

x