বি’শ্ববিদ্যালয়ের পাশাপাশি স্কুলগুলোও দ্রুত খুলে দিতে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নিতে সংশ্লিষ্টদের নির্দেশ দিলেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। বুধবার সচিব সভায় এ নির্দেশ দেন তিনি। রাজধানীর শেরেবাংলা নগরের পরিকল্পনা বিভাগের এনইসি সম্মেলনকেন্দ্রে অনুষ্ঠিত এ সভায় গণভবন থেকে ভার্চুয়ালি যুক্ত হন প্রধানমন্ত্রী।

শে’খ হাসিনা বলেন, শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানগুলো খুলে দেওয়া দরকার এবং সেটি খুব দ্রুত ব্যবস্থা নিতে হবে। এটি শুধু বিশ্ববিদ্যালয় বলে না, আমাদের স্কুলগুলোও খুলতে হবে। তিনি বলেন, এটা এখন সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ণ। কারণ শিশুরা ঘরে থাকতে থাকতে তাদেরও যথেষ্ট কষ্ট হচ্ছে। সেই দিকে আমাদের নজর দেওয়া দরকার।

 

স্কু’ল-বিশ্ববিদ্যালয় খুলে দিতে শিক্ষা মন্ত্রণালয় যথাযথ ব্যবস্থা নিচ্ছে জানিয়ে শেখ হাসিনা বলেন, আমি ধন্যবাদ জানাই শিক্ষা মন্ত্রণালয় এ ব্যাপারে যথাযথ ব্যবস্থা নিচ্ছে।

আ’ফগানিস্তানে বদলি চেয়ে দিল্লি হাইকোর্টে মামলা করেছেন ভারত-তিব্বত সীমান্ত পুলিশের দুই নারী কনস্টেবল! তবে মামলাটি খারিজ করে দিয়েছে আদালত। এ ধরনের মামলার আবেদনে বিস্মিত দিল্লি হাইকোর্টের বিচারপতি রাজীব সহায় ও বিচারপতি অমিত বনসল। খবর হিন্দুস্তান টাইমস।

খ’বরে বলা হয়, এই মামলার আবেদন এবং রায় দুটোই ১৫ আগস্ট তালেবানের হাতে কাবুল পতনের আগে হয়েছিল। ওই সময় সময় তালেবান বাহিনী একের পর এক শহর দখল করছিল।

 

এ দৃশ্য দেখে আফগানিস্তানে বদলি চেয়ে দিল্লি হাইকোর্টে মামলা করেন ওই দুই নারী কনস্টেবল। মামলাটি খারিজ করে আদালত বলেছে, ‘সশস্ত্র বাহিনীর সদস্য হিসেবে ভারত-তিব্বত সীমান্ত পুলিশের (আইটিবিপি) সদস্যদের যে কোনো জায়গায় নিয়োগ বা মোতায়েন করা যায়।

যে’খানে যে রকম প্রয়োজন, সেই অনুযায়ী এই নিয়োগ হয়। নির্দিষ্টভাবে আফগানিস্তানে নিয়োগ চাওয়ার কোনো এখতিয়ার তাদের নেই। তবে এই ভয়ঙ্কর পরিস্থিতিতে তারা নিজে থেকে আফগানিস্তানে মোতায়েন চেয়ে আবেদন করায় আমরা বিস্মিত।’

তবে আবেদনকারী কনস্টেবলরা দাবি করেন, তাদের ২০২০ সালের আগস্টে কাবুলের দূতাবাসে নিয়োগ করা হয়েছিল দুই বছরের জন্য। তবে চলতি বছরের জুনেই তাদের ফের একবার ভারতে বদলি করা হয়।

 

তা’দের দাবি, কাবুলে দুই বছর থাকা তাদের অধিকারের মধ্যে পড়ে। ভারত-তিব্বত সীমান্ত পুলিশ (আইটিবিপি) জানিয়েছে, কাবুলে সেই সময় তিনজন নারী কনস্টেবল মোতায়েন ছিলেন।

এ’রপরই আদালত জানায়, কনস্টেবলরা নিজেদের থেকে বেছে নিতে পারেন না যে তাদের কোথায় মোতায়েন করা হবে। উল্লেখ্য, ১৫ আগস্টের পর থেকে আফগানিস্তান থেকে ৯৯ জন আইটিবিপি সদস্য এবং দুটি স্নিফার কুকুরকে ভারতে ফিরিয়ে নিয়ে আসা হয়।