মাশাআল্লাহ! নাইজেরিয়ায় গভর্নরের স্ত্রী খ্রি’স্টান ধ’র্ম ছেড়ে ইসলাম গ্রহন!

নাইজেরিয়ার ওগান রাজ্যে’র গভর্নর ইবিখুনলের স্ত্রী ফার্স্ট লেডি ওলুফানসো আমুসো’ন তার খ্রিস্টান ধর্ম ছেড়ে ইসলামে ধর্মান্তরি’ত হয়েছেন। সিনেটর আমুসোন ২০১১ সালের এপ্রিলে অনুষ্ঠিত নির্বাচনে জয়ী হন।

পরে একই বছরের মে মাসে রাজ্যে’র চতুর্থ নির্বাচিত গভর্নর হিসেবে শপথ নেন। নাইজেরিয়ার ‘অ্যাকশন কংগ্রে’সের’ হয়ে তিনি নির্বাচনে প্রতিদ্বন্দ্বি’তা করেন।

ওলুফান’সো বলেন, ‘প্রথম ব্যক্তি হিসেবে আমি আমার মাকে এ সিদ্ধান্ত জানা’ই। তাকে বলি, ‘আমি একজন মুসলিম’কে বিয়ে করতে চাই’।

এটা শুনে প্রথমে’ই তিনি কান্নায় ভেঙে পড়েন এবং তারপর তিনি আমাকে জিজ্ঞাসা করেন, কেন তিনি সিদ্ধান্ত নিয়েছেন: এ সম্পর্কে সম্প্রতি নাইজেরিয়ার সংবাদমাধ্য’ম ‘ভ্যানগার্ড’কে দেয়া সাক্ষাৎ’কারে বিস্তারিত তুলে ধরেন।

সাক্ষাৎকা’রে গভর্নর-পত্নী স্পষ্ট করেছেন কেন একজন একনিষ্ঠ খ্রিস্টান থেকেও তিনি একজন মুসলিমকে বিয়ে করার সিদ্ধা’ন্ত নেন। ‘আমি বিষয়’টি আমার বাবাকে বলেছি কিনা’ এবং আমি তাকে বল’লাম ‘না’ এবং এতে আমি তার মাঝে ‘দুষ্ট হাসি’ দেখতে পাই।’

তিনি বলেন, ‘কিন্তু আজকে আমা’র মা এবং আমার স্বামী আমা’কে তাদের ভাল বন্ধুর চেয়েও বেশি পছন্দ করে’ন।

’ ওলুফানসো আরো ব’লেন, ‘যখন আমি আমার বাবাকে এ বিষয়ে বলেছি’লাম, তখন তিনি বললেন, ‘আচ্ছা ঠিক আছে, আমাদের শুধু এই সম্পর্কে প্রার্থনা করতে হবে। কিন্তু যে’কোনো ভাবেই হোক, পরে তারা আমাকে খুব আঘাত করে।

আমার স্বামী আল্লাহ’কে বিশ্বাস করেন। আমি বলব, আমার স্বামী আমার চেয়েও বেশি ধার্মিক।’ ‘তিনি প্রকৃত’পক্ষে আল্লাহর’ একজন মুমিন বান্দা।

আল্লাহর ওপর দৃঢ় বিশ্বা’সের বলেই তিনি মনে করেন ‘সবকিছুই সম্ভব’ এবং যখন আপনি কাউকে অধিক প্রতিজ্ঞা’বদ্ধ হতে দেখবেন তখন আপনা’কে তার বিশ্বাসের উপর ভিত্তি করে এটা দেখতে হবে; আল্লাহ’কে চ্যালেঞ্জ করে নয়।

আল্লাহকে বলতে হবে, ‘আমি তোমার উপর ঈমান এনেছি’ এবং তাকে (আল্লাহ) স্পষ্ট বুঝা’র জন্য আপনা’কে বার বার চেষ্টা করতে হবে।’

Articles You May Like

Leave a Reply

x