ফাঁসির মঞ্চ না থাকায় চট্রগ্রাম ও কুমিল্লায় পাঠানো হচ্ছে নুসরাত হত্যার আসামীদের

দেশের বহুল আলোচিত মাদ্রাসা ছাত্রী নুসরাত হত্যা মামলার আসামীদের ফাঁসির রায় কার্যকর করার উদ্দেশ্যে তাদের চট্রগ্রাম ও কুমিল্লা কেন্দ্রীয় কারাগারে পাঠানো হবে।
ফেনী কারাগারে ফাঁসির মঞ্চ না থাকায় না থাকায় আসামীদের পৃথকভাবে চট্রগ্রাম ও কুমিল্লায় পাঠানো হচ্ছে বলে জানিয়েছে কারা কর্তৃপক্ষ।

মঙ্গলবার এসব আসামীদের পাঠানো হবে জানিয়েছে ফেনী জেলা কারাগারের জেল সুপার রফিকুল কাদের।
কারা মহাপরিদর্শক (আইজি প্রিজন) ব্রিগেডিয়ার জেনারেল এ কে এম মোস্তফা কামাল পাশা সোমবার বিকালে কারাগার পরিবর্তনের অনুমোদন দিয়েছেন।

নুসরাত জাহান রাফি হত্যা মামলার ১৬ ফাঁসির আসামীকে পৃথক দুটি ভাগে চট্রগ্রাম ও কুমিল্লায় পাঠানো হবে। একভাবে থাকবে ১৪ জন আসামি থাকবে যাদের কুমিল্লায় এবং অপরভাবে ২ জন মহিলা আসামী যাদের চট্রগ্রামে পাঠানো হবে বলে জানিয়েছেন।

মৃত্যুদণ্ডপ্রাপ্তরা হলঃ অধ্যক্ষ সিরাজ উদ দৌলা, নূর উদ্দিন, শাহাদাত হোসেন শামীম, সোনাগাজী পৌরসভার কাউন্সিলর ও পৌর আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক মাকসুদ আলম, সাইফুর রহমান মোহাম্মদ জোবায়ের, জাবেদ হোসেন ওরফে সাখাওয়াত হোসেন জাবেদ,

হাফেজ আব্দুল কাদের, আবছার উদ্দিন, কামরুন নাহার মনি, উম্মে সুলতানা ওরফে পপি, আব্দুর রহিম শরীফ, ইফতেখার উদ্দিন রানা, ইমরান হোসেন ওরফে মামুন, মোহাম্মদ শামীম, মাদ্রসার গভর্নিং বডির সহ-সভাপতি সোনাগাজী উপজেলা আওয়ামী লীগের সাবেক সভাপতি রুহুল আমীন ও মহিউদ্দিন শাকিল।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *